ট্রাফিকের অর্থনৈতিক প্রভাব !!!

Sharing is caring!

ট্রাফিক মানেই সড়কপথ, গাড়ি, যাত্রী । মানবজাতির কল্যাণে ট্রাফিকের আবিষ্কার ।

আদি যুগে মানুষ পায়ে হেটে গন্তব্যে পৌঁছাতো । আগুন আবিষ্কার ও ব্যবহারের পর থেকে মানুষ বিভিন্ন সময়ে বিভিন্ন জিনিসের আবিষ্কার করে শুধুমাত্র জীবনকে সহজ করে নিতে । তেমনি এই ট্রাফিক । গাড়ি আবিষ্কার করে মানুষের যে অসীম কষ্ট লাঘব করেছে । তার জন্যে ট্রাফিক অন্যতম । কারন নিয়ম ছাড়া কোনো কিছু চলে না । সূর্যোদয় এ সকাল হয় আবার সূর্যাস্তের পর সন্ধ্যা হয় ।

ট্রাফিক ও নিয়ম এর মধ্যে , এই ট্রাফিক আপনাকে আপনার গন্তব্যে পৌঁছাবে তবে আদি যুগ হতে হাজারগুন কম সময়ে । গাড়ি আবিষ্কার করার পর দেখা গেল । রাস্তায় গাড়ি চলছে লাগাম ছাড়া , যার যেমন ইচ্ছে চলছে আর এক গাড়ির সাথে অন্য গাড়ির সংঘর্ষ তে হচ্ছেই । এরপর গাড়ির নিয়ম করে চলাচলের জন্যে করা হলে ট্রাফিক নিয়ম ।

যেখানে গ্রাম থেকে শহরে আসতো পুরো দিন সময় নিয়ে , পর দিন করবে কাজ আবার তার পরের দিন সময় নিয়ে গ্রামে ফিরে যাবে । তখনকার দিনে ব্যবসা ছিলো দিন পার করে আমদানি রপ্তানি করা । ব্যবসা মানেই বিশাল কিছু । এই গাড়ি আর ট্রাফিক সুবিধা করে দিয়েছে প্রচুর ।

অর্থনীতির দিকে চিন্তা করলে সবচেয়ে বেশি লাভজনক হলো ব্যবসাতে । কারণ এখন পন্য আমদানি রপ্তানিতে নেই কোনো সময়ের ভাবনা । যার ফলে কাঁচামাল আমদানিতে হয়েছে সুবিধা । পচনশীল পন্য ও হচ্ছে আনা নেওয়া । যেটা ছিল স্বপ্ন তা বাস্তবে পরিণত হচ্ছে । শুধুমাত্র দেশের মধ্যে ই নয় । এখন আর্থিক লেনদেন হচ্ছে দেশের বাইরে । আর বাণিজ্য হয়ে গেছে আন্তর্জাতিক ।

দেশে বাণিজ্য লাভজনক হয়ে দেশের বাইরে পণ্য পাঠানো হয় । যার ফলে বৈদেশিক মুদ্রা অর্জন হচ্ছে । এসব সম্ভব হচ্ছে এই যানবাহনের জন্যে । কম সময়ে দেশের বাইরে যাওয়া যাচ্ছে । মানুষ দেশের বাইরে গিয়ে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে কাজ করছে । শুধু তাই নয় দেশে আগে যা উৎপাদন হতো না , ট্রাফিক সুবিধার কারনেই দেশের বাইরে থেকে কাঁচামাল আমদানী করা হচ্ছে ।

মানুষ এখন বাহিরের পণ্য রপ্তানী করে দেশে ব্যবসা করা রীতি মত জমজমাট ব্যবসা হিসেবে পরিচিত হচ্ছে । বিদেশের সাথে তাল মিলিয়ে চলতে পারছে । জাতীয় উৎপাদনের বড় ভুমিকা রাখছে যানবাহন । ট্রাফিক ব্যতিত জীবন অচল ।আমাদের জীবন চলার পথে ট্রাফিক অতিপ্রয়োজনীয় । ট্রাফিক ছাড়া আমাদের কর্মজীবন চলেই না ।

যেখানে গ্রাম থেকে শহরে আসতো পুরো দিন সময় নিয়ে , পর দিন করবে কাজ আবার তার পরের দিন সময় নিয়ে গ্রামে ফিরে যাবে । তখনকার দিনে ব্যবসা ছিলো দিন পার করে আমদানি রপ্তানি করা । ব্যবসা মানেই বিশাল কিছু । এই গাড়ি আর ট্রাফিক সুবিধা করে দিয়েছে প্রচুর । অর্থনীতির দিকে চিন্তা করলে সবচেয়ে বেশি লাভজনক হলো ব্যবসাতে । কারণ এখন পন্য আমদানি রপ্তানিতে নেই কোনো সময়ের ভাবনা । যার ফলে কাঁচামাল আমদানিতে হয়েছে সুবিধা ।

পচনশীল পন্য ও হচ্ছে আনা নেওয়া । যেটা ছিল স্বপ্ন তা বাস্তবে পরিণত হচ্ছে । শুধুমাত্র দেশের মধ্যে ই নয় । এখন আর্থিক লেনদেন হচ্ছে দেশের বাইরে । আর বাণিজ্য হয়ে গেছে আন্তর্জাতিক । দেশে বাণিজ্য লাভজনক হয়ে দেশের বাইরে পণ্য পাঠানো হয় । যার ফলে বৈদেশিক মুদ্রা অর্জন হচ্ছে । এসব সম্ভব হচ্ছে এই যানবাহনের জন্যে । কম সময়ে দেশের বাইরে যাওয়া যাচ্ছে ।

মানুষ দেশের বাইরে গিয়ে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে কাজ করছে । শুধু তাই নয় দেশে আগে যা উৎপাদন হতো না , ট্রাফিক সুবিধার কারনেই দেশের বাইরে থেকে কাঁচামাল আমদানী করা হচ্ছে । মানুষ এখন বাহিরের পণ্য রপ্তানী করে দেশে ব্যবসা করা রীতি মত জমজমাট ব্যবসা হিসেবে পরিচিত হচ্ছে ।

বিদেশের সাথে তাল মিলিয়ে চলতে পারছে । জাতীয় উৎপাদনের বড় ভুমিকা রাখছে যানবাহন । ট্রাফিক ব্যতিত জীবন অচল ।আমাদের জীবন চলার পথে ট্রাফিক অতিপ্রয়োজনীয় । ট্রাফিক ছাড়া আমাদের কর্মজীবন চলেই না ।

সব কিছুর ই খারাপ দিক থাকে । ট্রাফিক যেমন মানুষের উন্নতি করেছে , তেমনি ট্রাফিক মানুষের অনেক সমস্যা সৃষ্টি করছে আর ট্রাফিক নিয়মের অবহেলায় মানুষকে অনেক দূর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে । ট্রাফিকের আইনের ব্যতিক্রমে তৈরি হয় ট্রাফিক জ্যাম । 
কম সময়ে অর্থনৈতিক লাভজনক কিন্তু আপনি যদি সময় মত গন্তব্যে পৌঁছাতে চান তা কখনো নিয়ম মত হবে না। কারণ আপনি ট্রাফিক এ আটকাবেন । আর কবে এর থেকে ছাড় পাবেন তা বলা মুশকিল । মানুষের জীবনে সময় অনেক কম , তাই মানুষ সময়ের মধ্যে কাজ করতে চাওয়া স্বাভাবিক । নিজের কর্মক্ষেত্রে পৌঁছাতে দেরি হলে কাজ শুরু হয় দেরিতে ।
পণ্য সরবরাহের সময় পণ্য ট্রাফিকেই আটকে থাকছে সুতরাং উৎপাদনেও ব্যাঘাত ঘটছে । এই ট্রাফিক সমস্যার জন্যে অর্থনীতিতে প্রভাব পরছে বেশি । ট্রাফিক জাতীয় অর্থনীতি আয় ও উন্নয়নে বাধা দিচ্ছে । ট্রাফিক আইন কঠোরতর করা উচিৎ । উচিৎ আমাদের ট্রাফিক আইন মেনে চলা । তাহলে সকলেই ট্রাফিক ব্যবহারে সাচ্ছন্দ্যবোধ করবে ।

 

—- আফসারা তাসনীম

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

shares